নিউ ইয়র্কে দু’ভাগে বিভক্ত আমেরিকা বাংলাদেশ প্রেসক্লাব
নিউজ-বাংলা ডেস্ক   
বৃহস্পতিবার, ২৩ মার্চ ২০১৭

দু’ভাগে বিভক্ত হলো যুক্তরাষ্ট্রে কর্মরত বাংলাদেশি আমেরিকান সাংবাদিকদের সংগঠন  আমেরিকা বাংলাদেশ প্রেসক্লাব। ২০০৮ সালে যুক্তরাষ্ট্রে কর্মরত বাংলাদেশি আমেরিকান সাংবাদিকদের ঐক্যবদ্ধ করার লক্ষ্য নিয়ে নিউ ইয়র্কে আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাব প্রতিষ্ঠা করা হয়। আমেরিকা বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের আভ্যন্তরিন বিষয় নিয়ে গত কয়েকবছর ধরে সংগঠনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কয়েকজন কার্যনির্বাহী সদস্যের অন্তর্দ্বন্দ্বের জের ধরে অবশেষে বিভক্ত হল এই সংগঠনটি। এক পক্ষে লাভলু-শহীদুল পরিষদ বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত, অপর পক্ষে সাধারন সভায় কন্ঠ ভোটে দর্পণ-রচি পরিষদ নির্বাচিত।      

 লাবলু-শহীদ

গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ছিল মনোনয়নপত্র জমা এবং ২৮ ফেব্রুয়ারি ছিল মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন। তিন সদস্যের নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী মনোনয়ন জমাদানকারীদের প্রার্থিতা প্রত্যাহার ও বাছাই করার পর প্রতিটি পদের জন্য একজন করে প্রার্থী পাওয়া যায়। প্রত্যাহার ও বাছাই করার পর এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী না থাকায় মনোনয়ন জমা দেওয়া প্রার্থীদের প্রাথমিকভাবেভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়।
আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত এ নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিতরা হলেন, সভাপতি সাপ্তাহিক ঠিকানা ও বিবিসি বাংলার যুক্তরাষ্ট্রের কন্ট্রিবিউটর লাভলু আনসার, সহ-সভাপতি নিউইয়র্কভিত্তিক প্রথম বাংলা টেলিভিশন চ্যানেল বাংলা টিভির মহাপরিচালক মীর-ই ওয়াজিদ শিবলী, সাধারণ সম্পাদক সাপ্তাহিক বাঙালি ও দৈনিক ইত্তেফাকের বিশেষ প্রতিনিধি শহীদুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক বাংলা টিভির বিশেষ প্রতিনিধি রিজু মোহাম্মদ, কোষাধ্যক্ষ সাপ্তাহিক ঠিকানার বিশেষ প্রতিনিধি মোহাম্মদ আবুল কাশেম, কার্যকরী সদস্য আরটিভি যুক্তরাষ্ট্রের আবাসিক প্রতিনিধি আশরাফুল হাসান বুলবুল, সাপ্তাহিক ও এখনসময়ের ফটো এডিটর নিহার সিদ্দিকী, এটিএন বাংলা ইউএসএ’র বার্তা সম্পাদক কানু দত্ত এবং বাংলাভিশনের যুক্তরাষ্ট্রের বিশেষ প্রতিনিধি মো. আজিম উদ্দিন অভি।
উল্লেখ্য, গত বছরের ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের বিশেষ সাধারণ সভায় সাধারণ সদস্যরা সর্বসম্মতভাবে নির্বাচন কমিশন গঠন করেন। তিন সদস্যের কমিশনে প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা আহ্বায়ক কাজী শামসুল হক প্রধান নির্বাচন কমিশনার এবং প্রতিষ্ঠাতা সদস্য আকবর হায়দার কিরণ ও রাশেদ আহমেদকে নির্বাচন কমিশনার করা হয়।
গত মেয়াদের কার্যকরী কমিটি যথাসময়ে নির্বাচন করতে না পারায় ২৮ ডিসেম্বরের জরুরি সাধারণ সভায় বর্তমান কার্যকরী কমিটির মেয়াদ ৩১ মার্চ ২০১৭ পর্যন্ত বাড়ানোর অনুমোদন দেন সাধারণ সদস্যরা।
  নির্বাচনের তফসিল অনুযায়ী, আগামী ১১ মার্চ ভোটগ্রহণ হওয়ার যে ঘোষণা ছিল বিনা প্রতিদ্বন্দিতা কমিটির সব কর্মকর্তা নির্বাচিত ঘোষণার ফলে এখন আর ভোটগ্রহণ হবে না। তবে বর্তমান কার্যকরী কমিটির ক্ষমতা
 ৩১ মার্চ ২০১৭ পর্যন্ত বহাল থাকবে। এই সময়ের মধ্যে বর্তমান কমিটি নবনির্বাচিত কমিটির কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করবে।

সভাপতি দর্পন , সম্পাদক রচি:

আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের নতুন কমিটির কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেছে বিদায়ী কমিটি। কমিটির সভাপতি হয়েছেন বিদায়ী কমিটির সাধারণ সম্পাদক দর্পণ কবীর। গত ১৯ মার্চ বিকালে জ্যাকসন হাইটসের খাবার বাড়ি রেস্টুরেন্টে আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে দর্পণ কবীরকে কণ্ঠভোটে সভাপতি নির্বাচিত করা হয়।

প্রসঙ্গত, গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ক্লাবের জরুরি সাধারণ সভায় সভাপতি পদে প্রবাস পত্রিকার সম্পাদক মোহাম্মদ সাঈদকে নির্বাচিত করা হয়েছিল।

তবে ১৯ মার্চ সাধারণ সভায় মোহাম্মদ সাঈদ ব্যক্তিগত অসুবিধার কারণে সভাপতি পদে থাকতে না পারার অপরাগতা প্রকাশ করেন এবং একই সঙ্গে ক্লাবের নতুন কমিটির সহসভাপতি (বিদায়ী কমিটির সাধারণ সম্পাদক) দর্পণ কবীরের নাম সভাপতি পদে প্রস্তাব করেন।

এ সময় উপস্থিত সদস্যদের কণ্ঠভোটে দর্পণ কবীর সভাপতি নির্বাচিত হন। এই কমিটির নির্বাহী সদস্য হিসেবে কণ্ঠভোটে নির্বাচিত হন মোহাম্মদ সাঈদ। নয় সদস্যের এই কমিটির মেয়াদ বহাল থাকবে ২০১৮ সাল পর্যন্ত।

সাধারণ সভায় সভাপতিত্ব করেন ক্লাবের বিদায়ী কমিটির সভাপতি নাজমুল আহসান এবং সভা পরিচালনা করেন বিদায়ী সাধারণ সম্পাদক দর্পণ কবীর। সভায় দর্পণ কবীর বিগত দিনের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

পরে নতুন কমিটির সাধারণ সম্পাদক শওকত ওসমান রচির হাতে রেজুলেশন বুক তুলে দেন সাধারণ সম্পাদক দর্পণ কবীর। এ সময় তাদের পাশে বিদায়ী কমিটির সভাপতি নাজমুল আহসান ও আজকাল পত্রিকার প্রধান সম্পাদক জাকারিয়া মাসুদ জিকোসহ ক্লাব কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় আমেরিকা-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের উদ্ভূত পরিস্থিতি নিয়ে বক্তব্য রাখেন- আজকাল পত্রিকার প্রধান সম্পাদক জাকারিয়া মাসুদ, প্রবাস পত্রিকার সম্পাদক মোহাম্মদ সাঈদ ও উপদেষ্টা সম্পাদক সৈয়দ উয়ালী-উল আলম। এছাড়া সভায় নিউইয়র্কে কর্মরত সাংবাদিকরা (সদস্য) অংশ নেন।

সর্বশেষ আপডেট ( বৃহস্পতিবার, ২৩ মার্চ ২০১৭ )